1. news.dailynobobarta@gmail.com : ডেইল নববার্তা : ডেইল নববার্তা
  2. udoyjuwelahmed@gmail.com : শহীদুর রহমান জুয়েল সিলেট ব্যুরো চীফ : শহীদুর রহমান জুয়েল সিলেট ব্যুরো চীফ
  3. rabbu4046@gmail.com : রাব্বু হক প্রধান আটোয়ারী (পঞ্চগড়) প্রতিনিধি : রাব্বু হক প্রধান আটোয়ারী (পঞ্চগড়) প্রতিনিধি
  4. subrata6630@gmail.com : Subrata Deb Nath : Subrata Deb Nath
মুকুটহীন সম্রাট আনোয়ার হোসেনের ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ | Daily Nobobarta
শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩:৩৩ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
মুন্সীগঞ্জে যাকাত ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ মিরসরাইয়ে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই বন্ধু নিহত রাজারহাটে জেলা পুলিশের উদ্যোগে ঘর পাচ্ছেন দৃষ্টি প্রতিবন্ধী খলিল ঘিওরে ইমারত নির্মাণ শ্রমিক ইউনিয়ন এর আলোচনা সভা সম্পন্ন ফের আর্থিক প্রতারণা মামলায় জ্যাকলিনকে তলব পাকিস্তান ক্রিকেটকে হত্যা করেছে নিউজিল্যান্ড : শোয়েব আখতার পাবনায় টুম্পা ও অনিবার্ণের স্মরণে বাচনশৈলীর ফ্রি স্বাস্থ্য ক্যাম্প দৌলতপুরে অবৈধ চায়না জাল জব্দ, ১ জনের জেল ও ৬ জনের জরিমানা আগামী প্রজন্মের জন্য টেকসই ভবিষ্যৎ নিশ্চিতে প্রধানমন্ত্রীর ৬ প্রস্তাব চল্লিশ কাহনিয়া প্রবাসী কল্যাণ সমিতির মানবিক কাজে মুগ্ধ গ্রামবাসী

মুকুটহীন সম্রাট আনোয়ার হোসেনের ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

বিনোদন প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৩৭ বার পঠিত
মুকুটহীন সম্রাট আনোয়ার হোসেন

মুকুটহীন সম্রাট আনোয়ার হোসেনের ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। নায়ক হিসেবে আনোয়ার হোসেনের ক্যারিয়ার বেশি দিনের নয়। এরপর কয়েক দশক চরিত্রাভিনেতা হিসেবে তাকে দেখেছে দর্শক। এর মাঝেই ঢালিউডের ইতিহাসের তার নাম বিশেষভাবে লেখা হয়ে গেছে।

খান আতার বিখ্যাত ‘নবাব সিরাজদ্দৌলা’ ছবির সুবাদে তিনি ‘মুকুটহীন সম্রাট’ নামে পরিচিত। আনোয়ার হোসেন আরও কয়েকটি বায়োপিক ও সাড়া জাগানো চলচ্চিত্র করলেও এ ছবি তার নামের সঙ্গে সঙ্গেই উচ্চারিত হয়।

অবিস্মরণীয় এ অভিনেতার মৃত্যুবার্ষিকী আজ। ২০১৩ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর রাজধানীর একটি হাসপাতালে মারা যান আনোয়ার হোসেন। একই দিন মিরপুর বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে মায়ের কবরেই চিরনিদ্রায় শায়িত হন। আনোয়ার হোসেনের জন্ম ১৯৩১ সালে জামালপুরের সরুলিয়া গ্রামে। তার বাবা নাজির হোসেন ছিলেন সহকারী নিবন্ধন কর্মকর্তা।

১৯৫১ সালে জামালপুর সরকারি উচ্চবিদ্যালয় থেকে ম্যাট্রিক পাস করেন আনোয়ার হোসেন। পরে আনন্দমোহন কলেজে ভর্তি হয়ে মঞ্চ নাটকের সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন। ময়মনসিংহ ছেড়ে একসময় ঢাকায় চলে আসেন। ঢাকা বেতারের নাটকে প্রথম অভিনয় শুরু করেন ১৯৫৭ সালে। নাটকটির নাম ছিল ‘নওফেল হাতেম’।

আনোয়ার হোসেন অভিনীত প্রথম ছবি ‘তোমার আমার’। মহিউদ্দিন পরিচালিত এ ছবিতে তিনি খলনায়ক চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। ১৯৬২ সালে মুক্তি পায় অভিনীত দ্বিতীয় ছবি ‘সূর্যস্নান’, এখানে তিনি মূল চরিত্রে অভিনয় করেন। এরপর অভিনয় করেন ‘জোয়ার এলো’ (১৯৬২), ‘কাচের দেয়াল’ (১৯৬৩), ‘নাচঘর’ (১৯৬৩), ‘দুই দিগন্ত (১৯৪৬), ‘বন্ধন’ (১৯৬৪), ‘একালের রূপকথা’ (১৯৬৫) প্রভৃতি ছবিতে।

১৯৬৫ সালে উর্দু ছবি ‘সাতরং’-এ ট্রাক ড্রাইভার চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন আনোয়ার হোসেন। এরপর উর্দু ছবি ‘উজালা’য় সুলতানা জামানের বিপরীতে নায়ক হিসেবে অভিনয় করেন। ‘উজালা’ মুক্তি পায় ১৯৬৬ সালে। পরের বছর বাংলা ও উর্দু ভাষায় নির্মিত ‘নবাব সিরাজদ্দৌলা’ ছবিতে কাজ করার পর আনোয়ার হোসেনকে আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি।

অভিনয়ের স্বীকৃতিস্বরূপ বহু পুরস্কার পেয়েছেন আনোয়ার হোসেন। ‘লাঠিয়াল’ ছবিতে অভিনয়ের জন্য সেরা অভিনেতা হিসেবে ১৯৭৫ সালে প্রথম জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন তিনি। ‘গোলাপী এখন ট্রেনে’ ছবির জন্য সহ-অভিনেতা হিসেবে পুরস্কার পান ১৯৭৮ সালে। এরও আগে ১৯৬৭ সালে ‘নবাব সিরাজদ্দৌলা’য় অভিনয় করে নিগার পুরস্কার পেয়েছিলেন আনোয়ার হোসেন। অভিনেতাদের মধ্যে তিনিই ১৯৮৮ সালে প্রথম একুশে পদক পান। এ ছাড়া ২০১১ সালে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান আসর থেকে আজীবন সম্মাননা পান গুণী এ শিল্পী।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

এ জাতীয় আরো খবর.

বিজ্ঞাপন

Daily Nobobarta © 2021 । About Contact PrivacyFamilyবাংলা কনভার্টার
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Dailynobobarta